01_53648_1501383467

প্রতিদ্বন্দ্বীতাপূর্ণ ম্যাচে বার্সার কাছে রিয়ালের হার

রিয়াল মাদ্রিদ-বার্সেলোনা লড়াই মানেই উত্তেজনায়পূর্ণ ঠাসা একটি ম্যাচ। তার প্রমাণ আবারও পাওয়া গেল যুক্তরাষ্ট্রে ইন্টারন্যাশনাল চ্যাম্পিয়ন্স কাপে। আক্রমণ-পাল্টা আক্রমণে ভরপুর ম্যাচে বার্সেলোনার কাছে ৩-২ গোলে হেরেছে রিয়াল মাদ্রিদ।

রোববার বাংলাদেশ সময় সকাল ৬টায় শুরু হওয়া ম্যাচে শক্তিশালী একাদশ নিয়ে মাঠে নামে বার্সা। তবে রিয়ালের দলে ছিলেন না তাদের তুরুপের তাস ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো।

বার্সার আক্রমণ ভাগের ত্রয়ী এমএনএস অর্থাৎ লিওনেল মেসি, নেইমার এবং লুইস সুয়ারেস নৈপুণ্যে ছিল দেখার মতো।

ম্যাচ শুরু হওয়ার মাত্র তিন মিনিটে এগিয়ে যায় বার্সা। মেসির শট রাফায়েল ভারানের গায়ে লেগে দিক পাল্টে জালে জড়ায়।

চার মিনিট পরই ব্যবধান দ্বিগুণ করে নেয় বার্সেলোনা। বাঁ দিক থেকে নেইমারের নিচু ক্রস সুয়ারেস ছেড়ে দিলে জোরালো শটে বল জালে পাঠান ইভান রাকিতিচ।

ধাক্কা সামলে ম্যাচে ফিরতে বেশি সময় লাগেনি রিয়ালের। ষষ্ঠদশ মিনিটে ডি-বক্সের প্রান্ত থেকে ইয়েসপার সিলেসেনকে ফাঁকি দেন মাতেও কোভাসিচ।

১৯তম মিনিটে বল নিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে পড়া বেনজেমার বাঁ পায়ের শট ডান পোস্ট ঘেঁষে বেরিয়ে গেলে সমতা ফেরেনি।

১০ মিনিট পর সহজ একটি সুযোগ নষ্ট হয় বার্সেলোনারও। ডান দিক থেকে সুয়ারেসের বাড়ানো বল ধরে নেইমারের শট ডান পোস্টের সামান্য বাইরে দিয়ে যায়।

৩৬তম মিনিটে জিনেদিন জিদানের ভরসার প্রতিদান দেন আসেনসিও। পাল্টা আক্রমণে মাঝ মাঠ থেকে বল নিয়ে এগিয়ে পাস দিয়েছিলেন কোভাসিচকে। ডি-বক্সে বল ফেরত পেয়ে কাছের পোস্ট দিয়ে নিচু শটে সহজেই সিলেসেনকে পরাস্ত করেন স্পেনের এই খেলোয়াড়।

বিরতির পাঁচ মিনিট পর আবারও রিয়ালের জালে বল জড়ায় বার্সা। বাঁ দিক থেকে নেইমারের মাপা ফ্রি-কিকে পা বাড়িয়ে বল জালে পাঠিয়ে দেন জেরার্দ পিকে।

বাকি সময়ে আর গোলের দেখা পায়নি কোনো দলই। তবে বেশ কয়েকটি সুযোগ নষ্ট করে বার্সা।

যুক্তরাষ্ট্রে হওয়া এই টুর্নামেন্টে তিনটি ম্যাচেই জয় পেল বার্সেলোনা। অন্যদিকে আগের ম্যাচে ম্যানচেস্টার সিটির কাছে ৪-১ গোলে হারের পর এবার বার্সার কাছে হারলো জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা।

About Avi Sharma

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Translate »