৩০০ টাকা ভাতার জন্য ২কিমি পথ হামাগুড়ি!

হাঁটা নিয়ে অনেক প্রতিযোগিতা হয়। তর্ক বিতর্ক অনেক কিছু। কিন্তু একটি প্রবাদ আছে “ততটা পথ সে এখনও পেরতে পারেনি যাতে তাকে ‘মানুষ’ বলা যাবে”, সে কথা মনে করিয়ে দিল অন্য এক ‘হাঁটা’।

 

রুদানা দেহুরি নামের ৬৫ বছরের এক প্রতিবন্ধী বৃদ্ধা। সোজা হয়ে দাঁড়াতে পারেন না। চলতে গেলে ভর দিতে হয় চার হাত-পায়ে। সম্পূর্ণ নিঃসঙ্গ এই মহিলার একমাত্র আয়ের উৎস একটি পেনশন। আর সেই পেনশন আনার জন্য ২কিমি পথ পাড়ি দিতে হয় এই বৃদ্ধাকে।তাঁর পেনশনের অঙ্ক শুনলে আশ্চর্য না হয়ে উপায় নেই। মাসে মাত্র ৩০০টাকা। কিন্তু এই সামান্য টাকাটুকু আনতেই কঠোর পরিশ্রম করতে হয় তাঁকে।

 

ভারতের ওড়িশার কদলিমুন্ডা গ্রামের বাসিন্দা রুদানা দেহুরি। তাকে পেনশন আনতে নানুকাপাসি পঞ্চায়েত দফতরে যেতে হয়। অতিক্রম করতে হয় ২ কিমি সড়ক। কিন্তু তাঁর এই অবস্থা নিয়ে কিন্তু বিন্দুমাত্র ভাবনা নেই সরকারের। তাঁর বাসস্থানে পেনশন পাঠানোর জন্য বহুবার আবেদন করেছেন তিনি। কিন্তু তাতে কোনও লাভ হয়নি।

 

About Magura Times

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

Translate »